সামিয়া সাঈদ লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার
৮ সেপ্টেম্বর, ২০১২ ১:৫২ অপরাহ্ণ
-

আকাশ ছোঁয়ার স্বপ্নে সবাইকে পেছনে ফেলে প্রথম হলেন কুমিল্লার সামিয়া সাঈদ। টান টান উত্তেজনা, আবেগ আর উৎকণ্ঠার লড়াইয়ে ২০১২-এর লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টারের মুকুট উঠল তাঁর মাথায়। দেশের কয়েক হাজার সুন্দরীকে পেছনে ফেলে বিজয়মুকুট ছিনিয়ে নিলেন সামিয়া সাঈদ। তবে শুধু সৌন্দর্যই নয়, মেধা ও যোগ্যতাই যে সৌন্দর্যের প্রধান মাপকাঠি, বুঝিয়ে দিলেন তা-ও। গতকাল শুক্রবার রাতে তারা ঝিলমিল এক বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানে বিজয়মুকুটের সঙ্গে জয় করলেন দর্শকের হূদয়।

গতকাল বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত ‘লিভ বিউটিফুল’ স্লোগানে আয়োজিত ‘লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার ২০১২’ প্রতিযোগিতায় দ্বিতীয় ও তৃতীয় হলেন যথাক্রমে ময়মনসিংহের প্রসূন আজাদ ও পাবনার সামিহা হোসেন খান। প্রতিযোগিতায় চূড়ান্ত আসরে বিচারকের দায়িত্ব পালন করেন জাদুশিল্পী জুয়েল আইচ, অভিনয়শিল্পী আফসানা মিমি, তৌকীর আহমেদ ও তারিন। তাঁদের সঙ্গে বিশেষ বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন আসাদুজ্জামান নূর ও শাঈখ সিরাজ।
বিজয়ীর মাথায় মুকুট পরিয়ে দেন গতবারের ‘লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার’ মাহবুবা ইসলাম। অনুষ্ঠানে চূড়ান্ত বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দিয়েছেন ইউনিলিভার বাংলাদেশের ব্র্যান্ড ডিরেক্টর কে এস এম মিনহাজ, চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব ও সাংসদ আসাদুজ্জামান নূর প্রমুখ।
এদিকে পাঁচ সুন্দরীর মধ্যে কে সেরা, এ নিয়ে নানা আলোচনা চলছে কিছুদিন ধরে। পাবনার সামিহা হোসেন খান, ময়মনসিংহের প্রসূন আজাদ ও ফাতিমা তুজ্ জোহরা, কুমিল্লার সামিয়া সাঈদ এবং মানিকগঞ্জের সাদিয়া আনজুমান্দ বানুর মধ্যে কে এগিয়ে আছেন?

অনুষ্ঠানের শুরুতে ছিল সেরা ১০ প্রতিযোগীর কোরিওগ্রাফি। এরই মধ্য দিয়ে মঞ্চে হাজির হন সেরা পাঁচ প্রতিযোগী। এরপর ছিল লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার ২০১২ প্রতিযোগিতার কিছু মুহূর্তের ভিডিওচিত্র। তবে শুধু সৌন্দর্যই নয়, মেধা ও যোগ্যতাই যে সৌন্দর্যের প্রধান মাপকাঠি, তা-ও বুঝিয়ে দিলেন প্রতিযোগীরা বিভিন্ন সময়ে বিচারকদের বিচিত্র প্রশ্নের বুদ্ধিমত্তাপূর্ণ জবাব দিয়ে। এ ছাড়া ছিল বিগত লাক্স সুন্দরীদের একটি নৃত্য এবং ফুয়াদ অ্যান্ড ফ্রেন্ডস ব্যান্ডের গান। পুরো আয়োজন সরাসরি সমপ্রচার করে চ্যানেল আই।

এবারের ‘লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার’ প্রতিযোগিতার বিজয়ী পেয়েছেন একটি নতুন গাড়ি। এ ছাড়া প্রথম রানারআপ পাঁচ লাখ টাকা ও দ্বিতীয় রানারআপ পেয়েছেন তিন লাখ টাকা। চতুর্থ থেকে দশম স্থান পাওয়া প্রতিযোগী প্রত্যেকের জন্য ছিল এক লাখ টাকা করে। এ ছাড়া রয়েছে অভিনয়ে উচ্চশিক্ষার জন্য আন্তর্জাতিক শিক্ষাবৃত্তি ও বিভিন্ন উপহারসামগ্রী।
তারকা খোঁজার এই প্রতিযোগিতা সম্মিলিতভাবে আয়োজন করেছিল ইউনিলিভার বাংলাদেশ, এশিয়াটিক লি. ও চ্যানেল আই।

পাঠকের মন্তব্য